সৌদি আরবের ইতিহাসে রাজা সালমানের সর্ববৃহৎ কাঠামোগত সংস্কার

তথ্য ছড়িয়ে দিন

Time: March 27, 2020

 
নতুন রাজা, সালমান, শুক্রবার, জানুয়ারী ২৩, ২০১৫, তাঁর পুত্র রাজকুমার মোহাম্মদকে প্রতিরক্ষা মন্ত্রী হিসেবে নিযুক্ত করেন। রাজা ৩০ বছর বয়সেই রাজকীয় শাসনের প্রধান হয়েছিলেন এবং তিনি তার বাবার সবচেয়ে পছন্দের ছেলে।
২০১৫  সাল, রাজা সালমানের রাজত্বের শুরু, সৌদি আরবের সরকার রাজধানীতে উচ্চাভিলাষী উন্নয়নের উচ্চাকাঙ্খা অর্জনের লক্ষ্যে কাঠামোগত সংস্কারের ধারাবাহিকতা বজায় রেখেছে।
রাজা সালমান দেশের শ্রম, ইসলামিক বিষয় ও সংস্কৃতি মন্ত্রীকে প্রতিস্থাপন করেছেন। রাজা পবিত্র  শহর মক্কার জন্য রাজকীয় কমিশন গঠন করতে বলেন এবং তথ্য মন্ত্রণালয় থেকে সম্পূর্ণ আলাদাভাবে, একটি নতুন সংস্কৃতি মন্ত্রণালয় প্রতিষ্ঠিত করার চিন্তা করেন।
রাজা সালমান পরিবেশ এবং পবিত্র শহর মক্কা জন্য রাজকীয় কমিশন গঠন এবং জেদ্দা লোহিত সাগর শহর সংরক্ষণের জন্য একটি প্রশাসন গঠন করেন।
রাজকীয় আদেশানুসারে প্রতিনিধি নিযুক্ত করা হয়েছে। টেলিযোগাযোগ, পরিবহন, শক্তি, শিল্প এবং বিশুদ্ধ পানি এবং রাজকীয় কমিশনের নতুন প্রধান নিযুক্ত করেন। পারমানবিক ও নবায়নযোগ্য শক্তির জন্য রাজা আব্দুল্লাহ সিটি প্রতিস্থাপন করে।
গত তিন বছরের রাজকীয় অবনতির ধারাবাহিকতায় বেশ কয়েকটি বিষয় রাজা সালমান চিহ্নিত করেছেন। বিশ্লেষকরা আল আরবীয়দের সাথে কথা বলে উল্লেখ করেন যে এটি প্রশাসনিক কাঠামোগত সংস্কারের কর্মকাণ্ডে প্রভাব বিস্তার ও কর্মকাণ্ডে বাধা সৃষ্টিকারী প্রতিষ্ঠানসমূহের প্রশাসনিক সংস্কার, দক্ষতা অর্জনের একটি ক্রমাগত প্রক্রিয়া।
সাম্প্রতিক নিয়োগসমূহ থেকে দেখা যায় যে, বেসরকারী খাত সরকারের অনেক প্রতিষ্ঠানের সাথে জড়িত, যেমন বেসরকারি খাতের ব্যবসায়ীর নিয়োগে দেখা যায় আহমেদ বিন সুলাইমান আল-রাজী, যিনি শ্রম ও সামাজিক উন্নয়নের মন্ত্রী ছিলেন আলী বিন নাসের আল -গাফিস।
“সরকারি প্রতিষ্ঠানগুলো বেসরকারি খাতের দক্ষতা থেকে উপকৃত হতে পারে এবং আন্তঃসম্পর্কীয় সহযোগিতা অর্জন করতে পারে, এটি একটি স্তম্ভ রাজ্যের লক্ষ্য” রিয়াদ ভিত্তিক এক বিশ্লেষক আল আরাবিয়া কে জানান।
অন্তর্বর্তী সরকারের মতে, ৯০ শতাংশ মন্ত্রণালয় সচিবদের অধীনে ছিল না। নতুন সংস্কারে রাষ্ট্রের ভবিষ্যত নেতৃবৃন্দের উচ্চতর যোগ্যতাসম্পন্ন অবস্থানে অনুমান করা হচ্ছে।
 

এই নিবন্ধটি প্রথম প্রকাশিত হয়েছিল সংবাদমাধ্যম আল আরাবিয়া ইংলিশ

আপনি এই ওয়েবসাইটের আরো আকর্ষণীয় খবর বা ভিডিও দেখতে চাইলে ক্লিক করুন এখানে আল আরাবিয়া ইংলিশ হোম 


তথ্য ছড়িয়ে দিন